সর্বশেষ সংবাদ

বলিউডের ২০১৫ সালের সেরা দশ ছবি

টিকিটের জন্য লম্বা লাইন দিয়ে হোক বা ব্ল‍্যাকে কাটার তাড়াহুড়ো, এই বছরেও ভারতাবাসী সিনেমা দেখেছে চুটিয়ে। কিন্তু সব ছবিই তো সেরা নয়। ২০১৫–র সেরা দশটি ছবির তালিকা রইল, পছন্দ না হলে তর্ক চলতেই পারে!

বলিউডের ২০১৫ সালের সেরা দশ ছবি

১। ডিটেকটিভ ব্যোমকেশ বক্সি
পরিচালক– দিবাকর ব্যানার্জি
অভিনয়ে– সুশান্ত সিং রাজপুত, নীরজ কবি, দিব্যা মেনন, আনন্দ তিওয়ারি

অনেক বিতর্ক, তবু এই বছরের সেরা বলিউড ছবির তালিকায় প্রথমেই থাকবে শরদিন্দু বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাহিনী অবলম্বনে তৈরি এই ছবির কথা। ভারতীয় ছবির ইতিহাসে এমন থ্রিলার দ্বিতীয়টি হয়নি। মূল কাহিনী থেকে শুধু ভাবটুকু গ্রহণ করেছিলেন দিবাকর। নিজে হাতে তৈরি করেছিলেন ব্যোমকেশের চরিত্র। একাধিক কাহিনী গেঁথে ছবির জন্য এক পৃথক গল্প ফেঁদেছিলেন পরিচালক। জুটেছিল জাতীয় পুরস্কার।

২। তিতলি
পরিচালক —  কানু বেহল
অভিনয়ে– রণবীর শোরে, ললিত বেহল, শশাঙ্ক অরোরা, সুমিত গুলাটি

দর্শক মহলে বিশেষ সমাদর না জুটলেও সমালোচকরা মুগ্ধ হয়েছিলেন এই ছবি দেখে। দিল্লির একটি পরিবার, যার দুই ভাই গাড়ি ডাকাতি করে পেট চালায়। সেই পরিবারের ছোট ছেলে তিতলি, যাঁর সঙ্গে বিয়ে হয় নীলুর।  দাম্পত্য জীবন সুখের ছিল না, মনে মনে নীলু ভালবাসত তার প্রেমিককেই। আর শুধু নিজের ব্যবসার টাকা জোগাড় করতে নীলু আর তাঁর প্রেমিকাকে ব্যবহার করে তিতলি। শেষ পর্যন্ত সব কিছুই ওলটপালট হয়। এই কয়েক লাইনে যে গল্পটা বলা সম্ভব নয়। শুধু বলা যায় ২০১৫ সালের অন্যতম সেরা ছবি এটি।

৩। দম লাগাকে হাইসা
পরিচালক– শরৎ কাটারিয়া
অভিনয়ে– আয়ুষ্মান খুরানা, ভূমি পেদনেকর, সঞ্জয় মিশ্র

মোটা বউ আর রোগা বরের গল্প। কুমার শানুর অন্ধ ভক্ত প্রেম পারিবারিক ক্যাসেটের দোকানের মালিক। অনিচ্ছা সত্ত্বেও বাড়ির চাপে তাঁকে বিয়ে করতে হয় সরকারি চাকুরিজীবী সন্ধ্যাকে। কিন্তু ভারী চেহারার জন্যেই নিজের স্ত্রীকে নিয়ে খুশি ছিল না প্রেম। শুরু হয় ঝামেলা, শেষ পর্যন্ত ঘটনা গড়ায় বিচ্ছেদ পর্যন্ত। কিন্তু শেষে এসে ভুল বুঝতে পারে প্রেম। কিন্তু ততক্ষণে সময় পেরিয়েছে অনেকটা। পাড়ায় আয়োজিত দম লগাকে হাইসা প্রতিযোগিতায় ভালবাসা প্রমাণ করতে মাঠে নামে এই জুড়ি। গল্পের সারল্যই এই ছবির সাফল্যের অন্যতম কারিগর।

৪। বজরঙ্গি ভাইজান
পরিচালক – কবির খান
অভিনয়– সালমান খান, কারিনা কাপুর, হর্ষলি মালহোত্রা, নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি

আমির খান এই ছবি দেখার পর সালমান খানকে বলেছিলেন, আগে এই ধরনের ছবি করলে ফিল্ম কেরিয়ারটা অন্যরকম হত সালমানের। খুব ভুল কিছু বলেননি। বাজারি চাহিদা মিটিয়েও কবির খানের এই ছবি রাজনৈতিকভাবে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ভারত–পাক সম্পর্কের নতুন সমীকরণ তৈরি করা হয়েছে এই ছবিতে। অনবদ্য অভিনয় করেছেন নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি ও মাত্র সাত বছরের মেয়ে হর্ষলি। এমন ছবি সালমানের জীবনে আর আসবে কিনা সন্দেহ আছে।

৫। শমিতাভ
পরিচালনা– আর বাল্কি
অভিনয়ে– অমিতাভ বচ্চন, ধনুশ, অক্সারা হাসান

বোবা দানিশ অভিনেতা হতে চায়। সেই স্বপ্ন নিয়ে মুম্বই এসেও লাভ হয় না। শুধু দেখা হয়ে যায় সহ–পরিচালনার কাজ করা অক্সারা পান্ডের সঙ্গে। কিন্তু কথা না বললে হিরো হওয়ার উপায় নেই। দুজন মিলে খুঁজে বের করে অমিতাভকে। অমিতাভের গলা ও দানিশের অভিনয় মিশে তৈরি হয় নতুন জুড়ি, শমিতাভ। ছবিতে অসাধারণ অভিনয় করেছেন অমিতাভ বচ্চন, ধনুশ দুজনেই। আর আবিষ্কার এতদিন সহ–পরিচালনার কাজে হাত পাকানো অক্সারা হাসানের অভিনয়।

৬। মার্গারিটা উইথ এ স্ট্র
পরিচালনা: সোনালি বসু, নিলেন মানিয়ার
অভিনয়ে : কাল্কি কোয়েচলিন, সোনালি গুপ্ত

সেরিব্রাল পালসি আক্রান্ত যুবতী লায়লার গল্প। তাঁর ভালবাসা, সম্পর্ক, পড়াশোনা, পরিবার সব কিছুই রয়েছে ছবি জুড়ে। ছবির সম্পদ কাল্কির অসাধারণ অভিনয়। সেরিব্রাল পালসি আক্রান্ত লায়লার ভূমিকায় দাপিয়ে বেড়ান তিনি। ছবিটি ভারতীয় বাজারে সুপারহিট না হলেও, কুড়িয়েছে সমালোচকদের বাহবা।

৭। তামাশা
পরিচালনা: ইমতিয়াজ আলি
অভিনয়ে : রণবীর কাপুর, দীপিকা পাড়ুকোন, যশ সায়গল

একে রণবীর–দীপিকা, সঙ্গে ইমিতয়াজ আলি, বছরের শেষটাও জমে গেল তামাশার জন‍্য। ছোটবেলা থেকে গল্প বলতে ও শুনতে আগ্রহী বেদ বর্ধন সাহানি ছুটি কাটাতে ফ্রান্সের কর্সিকা দ্বীপে যায়, দেখা হয় আরেক পর্যটক তারা মঙ্গেশকরের সঙ্গে। সেখানেই জমে যায় জুটি, কিন্তু দুজনেই কথা দেয়, ফিরে গিয়ে কিছুতেই দেখা করবে না। কিন্তু তারা থাকতে পারে না, খুঁজে বের করে বর্ধনকে। তারপরেই শুরু হয় আসল গল্প। এই ছবিতে রণবীরের অনবদ্য অভিনয় মুগ্ধ করেছে দর্শকদের।

৮। মাঝি, দ্যা মাউন্টেন ম্যান
পরিচালনা: কেতন মেহতা
অভিনয়ে: নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি, রাধিকা আপ্তে, পঙ্কজ ত্রিপাঠী

বোকা বুড়োর প্রচলিত মিথ নির্ভর ছবিটিও ২০১৫–র অন্যতম হিট। গ্রামকে আড়াল করেছে এক পাহাড়। পানীয় জল আনতেও সেই পাহাড় টপকাতে হয়। একদিন, দশরথ মাঝির সন্তানসম্ভবা স্ত্রী পাহাড় টপকাতে গিয়ে প্রাণ হারায়। তারপরেই দশরথ পাহাড় কাটার পরিকল্পনা নেই। কথিত আছে, দশরথ মাঝি নামে সত্যি এক ব্যক্তি এভাবে নিজের স্ত্রীর জন্য পাহাড় কেটেছিলেন। কয়েক দশক ধরে। ছবিতে অনবদ‍্য অভিনয় করেছেন নওয়াজ।

৯। দিলওয়ালে
পরিচালনা: রোহিত শেট্টি
অভিনয়ে : শাহরুখ খান, কাজল, বরুণ ধাওয়ান, শ্রুতি মেনন

বছরের মাঝামাঝি সময় থেকেই শুরু হয়েছিল প্রচার। মুখে মুখে রটে গিয়েছিল, মুক্তির আগেই নাকি হিট এই ছবি।  মুক্তির পর কিন্তু হতাশ হয়েছেন বেশিরভাগ দর্শক। খবরে প্রকাশ, প্রথম সপ্তাহান্তের প্রাইম টাইমে শো নাকি ফাঁকা ফাঁকা। যতটা আশা জাগিয়েছিল ছবিটি, বাস্তবে না হওয়ায় চটেছেন অনেকেই। তবে সবে শুরু, দেখা যাক বছরের শেষ সপ্তাহে ক্ষতি কতটা সামলাতে পারে দিলওয়ালে।

১০। বাজিরাও মাস্তানি
পরিচালনা : সঞ্জয় লীলা বনশালি
অভিনয়ে: রণবীর সিং, দীপিকা পাড়ুকোন, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া

ছবি মুক্তির আগেই উঠেছিল তীব্র বিতর্ক, যা আদালত পর্যন্ত গড়ায়। তবে শেষ পর্যন্ত নির্দিষ্ট দিনেই মুক্তি পায় বাজিরাও মস্তানি। পেশোয়া বাজিরাও ও মস্তানির সম্পর্ক নিয়ে বনশালি ঘরানার ঝাঁ চকচকে ছবি দিলওয়ালের মতো বড়সড় প্রতিদ্বন্দ্বীকেও আরামে সামলে নিয়েছে। প্রথম দিনেই ১২ কোটি টাকার আমদানি ছবিকে সাফল্যের দিকেই নিয়ে যাবে। কপাল ভাল থাকলে দিলওয়ালেকে টপকেও যেতে পারে বাজিরাও!
Designed by Copyright © 2014
Powered by Blogger.