সর্বশেষ সংবাদ

ভাইরাল হওয়া যে Advertisement ভাবাচ্ছে

‘চুল আরও ছোট করেন, যেন মুঠোয় ধরা না যায়!’ ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিও চিত্রে চুল কাটাতে সেলুনে যাওয়া এক তরুণীর সংলাপ এটি। বাংলাদেশে নারী নির্যাতনের হৃদয়বিদারক এ ছবি ফুটিয়ে তোলা হয়েছে নারী নির্যাতনবিরোধী সচেতনতামূলক সেই Advertisement-এ। এটি এখন ভাবাচ্ছে সবাইকে।

 ভাইরাল হওয়া যে  Advertisement ভাবাচ্ছে

গত ৮ মার্চ নারী দিবস উপলক্ষে বিজ্ঞাপনটি নির্মাণ করে সান কমিউনিকেশনস। ৬ মার্চ স্কয়ার টয়লেট্রিজের চুলের পরিচর্যাকারী অন্যতম পণ্য জুঁই ও সান কমিউনিকেশনসের ফেসবুক পাতায় এটি প্রকাশ করা হয়। অল্প সময়ের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায় দুই মিনিটের ভিডিওটি। বিজ্ঞাপনচিত্রের ভাবনাটি সান কমিউনিকেশনসের ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর তানভীর হোসেন ও তাঁর সহকর্মীদের। তিনি জানান, এ বছরের নারী দিবসে নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে সচেতনতা সৃষ্টির জন্য একটি কাজের পরিকল্পনা ছিল তাঁদের। সে জন্যই এ বিজ্ঞাপনচিত্র। তিনি বলেন, ‘বিজ্ঞাপনচিত্রটি নিয়ে যখন সবাই ভাবছিলাম, তখন প্রথম আলোর একটি প্রতিবেদনে জানতে পারি, শতকরা ৮০ জন নারী তাঁর ঘরেই নির্যাতনের শিকার হন। তখন আমাদের ভাবনায় আসে, বিভিন্ন সময় নারীদের চুল ধরে তাঁদের নির্যাতন করা হয়। সেই চুল, যা তাঁর সৌন্দর্য ও গর্বের প্রতীক। পুরুষদের সচেতন করতে আমরা তাই বেছে নিই চুলকে।’

বিজ্ঞাপনচিত্রের নির্মাতা আশুতোষ সুজন বলেন, ‘গল্পটি ফুটিয়ে তোলা ছিল চ্যালেঞ্জের। কাজটি করে আমি গর্বিত। মনে হচ্ছে, নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে সারা পৃথিবীকে সচেতন করতে সামান্য হলেও কিছু করতে পারলাম।’ ইতিমধ্যে নিউইয়র্ক টাইমস, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস, হাফিংটন পোস্টসহ বিশ্বের বেশ কয়েকটি নামকরা সংবাদপত্রে আলোচিত হয়েছে এ বিজ্ঞাপন। তানভীর বলেন, এ বছর ফ্রান্সে কানের বিজ্ঞাপন উৎসবে প্রতিযোগিতায় অংশ নেবে এ বিজ্ঞাপনচিত্র।

উল্লেখ্য, নারীদের সচেতন করতে তাঁদের ব্যক্তিগত ও সামাজিক সমস্যা এবং নির্যাতনে করণীয় সম্পর্কে পরামর্শসেবা দিতে ২০১৪ সালের অক্টোবর থেকে টোল ফ্রি কেয়ার জোন ০৮০০০৮৮৮০০০ চালু করে স্কয়ার টয়লেট্রিজ লিমিটেড। এই নম্বরে ফোন করে পেশাদার ব্যক্তিদের পরামর্শ নিতে পারেন তাঁরা। এ সেবার বার্তা পৌঁছাতেই বিজ্ঞাপনচিত্রটি। এতে মডেল হয়েছেন শাহনাজ সুমি।



Designed by Copyright © 2014
Powered by Blogger.