সর্বশেষ সংবাদ

নতুন SEREAL-এ প্রতিবন্ধী স্বামী নিয়ে স্ত্রীর লড়াই

নিরুপমা সুন্দরী, শিক্ষিত, নিম্নবিত্ত পরিবারের মেয়ে। নিজে যে টাকা রোজগার করে, তা দিয়েই সংসার চালায়। বাবা পেশায় শিক্ষক। গরিব ছেলেমেয়েদের শিক্ষা দেওয়াই তার জীবনের লক্ষ্য। নিরুপমার পরিবার একদিন তার বিয়ের জন্য পাত্র দেখে। পাত্রের নাম পৃথ্বীরাজ দেব। শিক্ষিত, উচ্চবিত্ত পরিবারের ছেলে। তাদের দু'জনের বিয়ে ঠিক হয়। কিন্তু বিয়ের দিন নিরু জানতে পারে পৃথ্বীরাজ শারীরিক প্রতিবন্ধী। সে হাঁটতে পারে না। হুইলচেয়ারে বসে বসেই তার দিন কাটে। কিন্তু এমন সময়ে কি আর বিয়ে ভেঙে দেওয়া যায়? ফলে নিরুপমা আর পৃথ্বীরাজের বিয়ে হয়ে যায়। বিয়ের রাতেই নিরুপমা স্থির করে, পৃথ্বীরাজের সব দায়িত্ব এবার থেকে সে নেবে। শারীরিকভাবে প্রতিবন্ধী হওয়ার কারণে তাকে মানসিকভাবে ভেঙে পড়তে দেবে না। আর সেদিন থেকেই আদর্শ স্ত্রী হয়ে ওঠার লড়াইয়ে নিরুপমা। নিরুপমার জীবনের মোড় ঘুরে গেল বিয়ের পর। ধীরে ধীরে শ্বশুরবাড়িতে সে বোঝে তার স্বামীর অবস্থার কথা। শুরু হয় স্বামীর সম্মান পুনরুদ্ধারে এক স্ত্রীর লড়াই। ঘর থেকে বাইরের সমাজের সব অন্যায়ের বিরুদ্ধে নিরুর লড়াইয়ে শরিক হয় তার শ্বশুর। এমনই গল্প নিয়ে সম্প্রতি শুরু হয়েছে নতুন SEREAL'স্ত্রী'। এই ধারাবাহিক নাটকটির গল্প বেশ অন্যরকম। পরিচালক স্ত্রী শব্দের গুরুত্ব যে কত তা বোঝানোর জন্য কাহিনীর বুনোট বেশ টানটান করেছেন। 

নতুন SEREAL-এ প্রতিবন্ধী স্বামী নিয়ে স্ত্রীর লড়াই

এই ধারাবাহিকে নিরুপমার চরিত্রে অভিনয় করেছেন অমনদীপ। তিনি অবাঙালি। কিন্তু কলকাতাতেই বড় হয়ে ওঠা তার। তাই ভাঙা ভাঙা বাংলাও বলতে পারেন। তবে চরিত্রটি যেহেতু এক বাঙালি স্ত্রীর, সে কারণে তিনি নিয়মিত বাংলা শিখে যাচ্ছেন। এই চরিত্রটিতে অভিনয় করতে পেরে দারুণ উচ্ছ্বসিত তিনি। কারণ এটি তার প্রথম অভিনয়। তিনি বলেন, 'গল্পের নিরু যেমন একাধারে সুন্দরী, গৃহকর্মে নিপুণা, স্বামী অন্তপ্রাণ, নিম্নবিত্ত ঘরের মেয়ে হয়েও উচ্চবিত্ত ঠাটবাটে দিব্যি মানিয়ে নিতে যেতে তার তুলনা নেই। তা না হলে একা হাতে গুণ্ডা দমন, ব্যবসা সামলানো এবং ঘরের কাজেও সমান দক্ষ। এমন চরিত্রে অভিনয় করে আমি বেশ আনন্দিতও।'

নিরুপমার স্বামীর চরিত্রে অভিনয় করছেন নীল ভট্টাচার্য। এই ধারাবাহিকে খলনায়িকা হলেন নিরুর শাশুড়ি। এই চরিত্রে অভিনয় করেছেন মৌমিতা গুপ্ত। তিনি আর তার সন্তানদেরও জীবনের একমাত্র লক্ষ্য নীলের ক্ষতি এবং সম্পত্তি নিজে কুক্ষিগত করা। নীরুর এই লড়াই এর ম্যাধ্যমে ভাইয়ে ভাইয়ে বিবাদ, সম্পত্তির জটিলতার মতো বাস্তবের নানা সমস্যাকে যেমন পরিচালক তুলে ধরছেন, ঠিক তেমনি অর্থনীতি যে মানুষকে মানুষ জ্ঞান করে না, সেটাও দেখিয়েছেন। জানা গেছে, এই ধারাবাহিকটির পরতে পরতে জড়িয়ে আছে বাঙালির মূল্যবোধ ও সংস্কৃতি। স্ত্রী মানে ঘোমটা টেনে বসে থাকা নয়, স্ত্রী মানে স্বামীর পাশে দাঁড়ানোসহ আরও অনেক কিছু। স্ত্রী মানে কী? এই স্ত্রী শব্দের সঠিক সংজ্ঞা খুঁজে পাওয়া যাবে এ ধারাবাহিকে। মোদ্দা কথা হলো, নারীসত্তার অনেক স্তর পেরিয়ে এক আত্মোপলব্ধির পথে এগিয়ে যাওয়া এক নারীর গল্প নিয়েই নির্মিত হয়েছে এই ধারাবাহিক নাটকটি। জি বাংলায় প্রতি সোম থেকে শনিবার বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ৭টায় প্রচার হচ্ছে নাটকটি। 



Designed by Copyright © 2014
Powered by Blogger.